ভোলায় ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ওলামা মাশায়েখ কর্মশালা ও প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ইমাম সম্মেলন অনুষ্ঠিত

প্রচ্ছদ » ইসলাম » ভোলায় ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ওলামা মাশায়েখ কর্মশালা ও প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ইমাম সম্মেলন অনুষ্ঠিত
মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪



---

এম মইনুল এহসান ॥

ইসলামিক ফাউন্ডেশন ভোলার উদ্দ্যোগে ‘সন্ত্রাসবাদ-উগ্রবাদ, নারী নির্যাতন, যৌতুক, বাল্যবিবাহ, মানবপাচার, গুজব এবং দুর্নীতি বিরোধি সচেতনতা’ শীর্ষক ওলামা মাশায়েখ কর্মশালা ও জেলা প্রশিক্ষনপ্রাপ্ত ইমাম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকালে ভোলা জেলা পরিষদ মিলনায়তনে এই কর্মশালা ও ইমাম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।ইসলামিক ফাউন্ডেশন ভোলার উপ-পরিচালক আরিফুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ভোলা জেলা প্রশাসক আরিফুজ্জামান। গেস্ট অব অনার হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবদুল মমিন টুলু। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ মামুনুর রশিদ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার মোঃ শফিকুল ইসলাম, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইউনুস, জেলা ইমাম সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব মাওলানা মীর মোঃ বেলায়েত হোসেন।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো উপস্থিত ছিলেন ভোলা দারুল হাদিস কামিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আলহাজ্ব মাওলানা আবুল বাশার আব্দুর রহিম, র‌্যাব-৮ এর কোম্পানি কমান্ডার মোঃ সাইফুল ইসলাম। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন ইসলামী ফাউন্ডেশনের সদর উপজেলা মডেল মসজিদের ইমাম হাফেজ মোঃ ইব্রাহিম রুহি। নাতে রাসুল সঃ পরিবেশন করেন হাফেজ মোঃ শেখ ফরিদ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন, ফিল্ড অফিসার মোঃ আলি আজগর। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা ও দোয়া মুনাজাত পরিচালনা করেন, ইসলামিক ফাউন্ডেশন ভোলার মাস্টার ট্রেইনার মুফতি মাওলানা রিয়াজ উদ্দিন কাশেমি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভোলা জেলা প্রশাসক আরিফুজ্জামান বলেন, ইসলামের সাথে সন্ত্রাসের কোনো সম্পর্ক নেই। সন্ত্রাসবাদ -উগ্রবাদ -জঙ্গিবাদ ইসলামের সাথে সম্পর্কহীন। জঙ্গি উর্দু শব্দ। জিহাদ ও জঙ্গিবাদ পরস্পর ভিন্ন বিষয়। নারী নির্যাতন ও যৌতুক প্রথা ইসলাম সমর্থন করে না। ইসলামে এই বিষয়ে কঠোর নিষেধ রয়েছে। মানব পাচার ভয়াবহ অপরাধ। তেমনি গুজব সৃষ্টি ও মারাত্মক অপরাধ যেটা ইসলামে কঠোরভাবে করা হয়েছে। দুর্নীতি ও অপরাধমূলক কর্মকা- ইসলামে হারাম। আমাদের জনসাধারণকে তাই এ সকল বিষয়ে সচেতন করতে হবে। আলেম ওলামা ও ইমামগন সমাজের মধ্যমণি ও মাথার মুকুট। উনারাই সমাজের প্রকৃত নেতা। এই সমস্ত সামাজিক ব্যাধি মোকাবেলায় ইমামগণের প্রচেষ্টা সবচেয়ে বেশি ভুমিকা রাখবে বলে আমি মনে করি। এ সময় তিনি জুমার খুতবার সময় জনসাধারণের মাঝে এ সমস্ত বিষয়গুলো তুলে ধরার জন্য বিশেষভাবে আহ্বান জানান।

গেস্ট অব অনারের বক্তব্যে ভোলা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবদুল মোমিন টুলু বলেন, দুর্নীতি- মজুদদারি, কালোবাজারি,ঘুষ, নারী নির্যাতন, ইভটিজিং ইত্যাদি মারাক্তক সামাজিক অপরাধ। সমাজ থেকে এগুলো নির্মূল করা সকলের দায়িত্ব। পৃথিবীর সকল দেশেই রমজান উপলক্ষে প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম কমানো হয়, অথচ আমাদের দেশে এক শ্রেণীর সিন্ডিকেট বিভিন্ন মালামাল মজুদ করে জিনিসপত্রের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করার চেষ্টা চালায়। ইমামগন সমাজে সর্বস্তরের প্রতিনিধিত্ব করেন। সমাজের সকল শ্রেণীর মানুষের সাথেই তাদের যোগাযোগ আছে। সমাজের সর্বসাধারণের মাঝে ইসলামের আলোকে এই সমস্ত বিষয়গুলোর ভয়াবহতা এবং গুনাহ সম্পর্কে ব্যপক ভাবে আলোচনা করলে কিছুটা হলেও মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি হবে। অপরাধের মাত্রা কিছুটা হলেও কমবে। এতে দেশ এবং জাতি উপকৃত হবে।

অনুষ্ঠান শেষে জেলা পর্যায়ে ৩ জন কে শ্রেষ্ঠ প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত ইমাম হিসাবে পুরস্কৃত করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০:৩৭:৪৪   ১৩৫ বার পঠিত  




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

ইসলাম’র আরও খবর


ভোলায় ইসলামী আন্দোলনের পক্ষে থেকে ঈদ সামগ্রী বিতরণ
সৌদি আরবের সাথে মিল রেখে ভোলায় ঈদের নামাজ অনুষ্ঠিত
ভোলায় ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত
ভোলায় ‘সৃষ্টির সেবা’ সংগঠনের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত
ইসলামী ঐক্য আন্দোলন ভোলা জেলা শাখার ত্রিবার্ষিক কাউন্সিল ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত
আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম ভোলা শাখার উদ্যোগে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত
ভোলায় মহানবী (সা.) কে নিয়ে কটূক্তিকারী বাসু দাসের সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি
রাসূল (সাঃ)কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে দৌলতখানে বিক্ষোভ মিছিল
ভোলায় মহানবী (সা.)কে কটুক্তিকারীর সর্বোচ্চ বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ ও স্মারকলিপি প্রদান
ভোলায় রাসূল (সাঃ)কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল



আর্কাইভ