ভোলায় ৩দিন ব্যাপী সাংস্কৃতিক উৎসব ও পিঠামেলা শুরু

প্রচ্ছদ » জেলা » ভোলায় ৩দিন ব্যাপী সাংস্কৃতিক উৎসব ও পিঠামেলা শুরু
মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৪



---

ছোটন সাহা ॥

ভোলায় উৎসবমুখর পরিবেশে শুরু হয়েছে আন্তঃউপজেলা সাংস্কৃতিক উৎসব ও পিঠামেলা। ভোলা জেলা প্রশাসনের আয়োজনে সোমবার (২৯ জানুয়ারি) বিকালে এ মেলার উদ্বোধন করেন ভোলার জেলা প্রশাসক আরিফুজ্জামান।

শহরের ভোলা টাউন কমিটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে বসছে এ মেলা। এতে ১৯টি স্টল বসছে। যার মধ্যে পিঠার ১২টি ও বইয়ের ৭ টি স্টল।

এদিকে উদ্ধোধনের প্রথমদিন থেকে বিপুল সংখ্যক দর্শনার্থীদের ঢল নেমেছে। একই সাথে পিঠামেলা সাংস্কৃতিক উৎসব ও বইমেলা স্টল থাকায় মেলায় পেয়েছে অনেকটা ভিন্নতা।

---

দর্শনার্থী স্কুল শিক্ষক সুমনা ও মুজিজা রহমান পূর্ন বলেন, এমন আয়োজন আমাদের অনেক ভালো লেগেছে। বাঙালির ঐতিহ্য পিঠা-পুলির সমারোহ দেখতে ভালো লাগছে। এরমধ্যে আমাদের ঐতিহ্য পুনরুদ্ধার হবে। আমরাও নতুন নতুন পিঠার সাথে পরিচিতি হচ্ছি।

মেলা প্রাঙ্গন ঘুরে দেখা গেছে, সারি সারি স্টল। এসব স্টলে বাহারি পিঠার সমারোহ। গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য এবং বিলুপ্তপ্রায় পিঠার পসরা সাজানো হয়েছে।

স্টল মালিক নারী উদ্যোক্তা লিমা রহমান বলেন, আমাদের স্টলে সকল ধরনের পিঠা রয়েছে। প্রথমদিন থেকে বিপুল সংখ্যক দর্শনার্থী ভীড় জমিয়েছেন। এতে আমরাও বেশ আনন্দিত।

জেলা পুলিশের স্টলের পুলিশ সদস্য পূর্নিমা বলেন, বাহারি পিঠার সমারোহ থাকায় আমাদের স্টলে ভীড় রয়েছে, আশাকরি আগামীদিন গুলোতে দর্শনার্থীদের আরও ভীড় বাড়বে।

মেলায় আগত দর্শনার্থী ও স্টল মালিকদের দাবী প্রতি বছরই যেন এমন আয়োজন করা হয়।

এ ব্যাপারে ভোলা জেলা প্রশাসক আরিফুজ্জামান বলেন, বাঙালির ঐতিহ্য পিঠা-পুলির সংস্কৃতিকে পুর্নজ্জিবিত করতে এমন আয়োজন। এখানে বইয়ের স্টল এবং পিঠার স্টল ভিন্নতা পেয়েছে। আমরা আমাদের সংস্কৃতি ধরে রাখতে এ আয়োজন করেছি। উদ্ধোধনী শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সজল চন্দ্রর শীল।

---

সভাপতিত্ব করেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) রিপন কুমার সাহা। আরও বক্তব্য রাখেন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল মমিন টুলু, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাজিদুজ্জামান, জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক মইনুল হোসেন বিপ্লব, মনপুরা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সেলিনা আকতার চৌধুরী প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা আ’লীগের সহসভাপতি মুক্তিযোদ্ধা দোস্ত মাহমুদ, জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ’লীগের সভাপতি মোশারেফ হোসেন, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইউনুছ, সদর উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম গোলদার, সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক মোঃ আজিজুল ইসলাম, সদর উপজেলা আ’লীগের যুগ্ম সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম।

৩দিন ব্যাপী এ আয়োজনে জেলা বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠন পরিবেশন করেন। প্রতিদিন বিকাল ৪টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত চলবে এ মেলা। ৩১ জানুয়ারি ৩দিনের এ আয়োজনের সমাপ্তি ঘটবে।

বাংলাদেশ সময়: ০:১৮:৩০   ১৮৪ বার পঠিত  




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

জেলা’র আরও খবর


পশ্চিম চরউমেদ ইউনিয়ন ॥ ২১ বছর পর ইউপি নির্বাচন, উৎসবের আমেজ
নিজেই অসুস্থ বোরহানউদ্দিন হাসপাতাল, ধসের আতঙ্ক নিয়ে চলছে সেবা
ভোলা সরকারি কলেজে আন্ত:কলেজ ক্রীড়া প্রতিযোগিতা বাচাই অনুষ্ঠিত
ভোলায় তিন মাস ব্যাপী কেয়ার গিভার প্রশিক্ষণের উদ্বোধন
নিষেধাজ্ঞা শুরু, ৭৯ হাজার জেলে চাল পাচ্ছেন না
ভোলায় বাংলাদেশ ইতিহাস সম্মিলনী বরিশাল বিভাগীয় সম্মেলন অনুষ্ঠিত
শোভা ছড়াচ্ছে স্বর্ণালী আমের মুকুল
অগ্নিকান্ডে নিহত ভোলার ২ পরিবারের পরিবারে শোকের মাতম
চর কচুয়াখালীতে যাতায়াতে ভোগান্তি
শোভা ছড়াচ্ছে স্বর্ণালী আমের মুকুল

আর্কাইভ