গ্যাস সংযোগের অভাবে ভোলার বিসিকে গড়ে উঠছে না নতুন শিল্প প্রতিষ্ঠান

প্রচ্ছদ » অর্থনীতি » গ্যাস সংযোগের অভাবে ভোলার বিসিকে গড়ে উঠছে না নতুন শিল্প প্রতিষ্ঠান
বুধবার, ১৯ জুলাই ২০১৭



---
ছোটন সাহা ॥

গ্যাসের সংযোগ না থাকায় ভোলার বিসিক শিল্প নগরীতে গড়ে উঠছে না নতুন কোন শিল্প প্রতিষ্ঠান। অন্যদিকে যেসব প্রতিষ্ঠান স্থপিত হয়েছে তাও চালু করা সম্ভব হচ্ছেনা। এতে মারাত্মক লোকসান গুনছেন ব্যবসায়ীরা। শুধু তাই নয়, বিসিকের সড়ক ও বিদ্যুৎ সংযোগের বেহাল দশার কারনে বিসিকের প্রতি অনেকের আগ্রহ হারিয়ে কমে গেছে।
ব্যবসায়ীরা বলছেন, বিসিকে প্রয়োজনীয় উপকরন, পর্যাপ্ত জায়গা, নিরাপত্তা এবং সহজ যোগাযোগ মাধ্যম হওয়ায় এখানে শিল্প কারখানার অফুরন্ত সম্ভাবনা থাকার পরেও নতুন কোন প্রতিষ্ঠান হচ্ছে। অনেকে প্লট নিয়েছেন কিন্তু গ্যাসের অভাবে ফ্যাক্টরী স্থাপন করছেন না।
সুত্র জানিয়েছে, ভোলা শহরের খেয়াঘাট সড়কের চৌমুহনী এলাকায় ১৯৯০ সালের দিকে গড়ে উঠেছে বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশন (বিসিক) ভোলা বিসিক শিল্প নগরী। সেখানের মোট জমির পরিমান ১৪.৪৫ একর। সেখানে ৭২টি প্লট থাকলেও মাত্র ৩৭টি প্লট বরাদ্দ হয়েছে। এর প্লটের মধ্যে বেশকিছু ফ্যাক্টরী ও কারখান স্থাপন করা হলেও জমজমাট হয়ে উঠেনি। এতে বেশীরভাগ প্লাট খালি পড়ে রয়েছে। এরমধ্যে আবার কিছু কিছু ফ্যাক্টরী নানা কারনে বন্ধ হয়ে গেছে।
ব্যাবসায়ীরা জানান, ভোলায় প্রচুর পরিমানে গ্যাসের মজুদ থাকায় অনেক ব্যবসায়ীদের আশা জেগে ছিলো বিসিক শিল্প নগরীকে ঘিরে। কিন্তু হঠাৎ করেই শিল্প এলাকায় গ্যাসের সংযোগ বন্ধ হয়ে পড়ায় অনেক ব্যবাসয়ীই হতাশার মধ্যে পড়েছেন। অনেকে শিল্প প্রতিষ্ঠান স্থাপনের উদ্যোগ নিলেও শেষ পর্যান্ত আগ্রহ হারিয়ে ফেলেন। যারা ইতমধ্যে শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়েছেন তারাও দুশ্চিন্তায়।
বিসিকের ব্যবসায়ী আশিষ মিশ্র জানান, গ্যাসের উপর নির্বর করে আমরা বিসিকে একটি মুড়ির ফ্যাক্টরী স্থাপন করেছি কিন্তু আজো গ্যাসের সংযোগ দেয়া হয়নি। তাই ফ্যাক্টরীটি চালু করা সম্ভব হচ্ছে না।
বিসিক ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি রফিকুল ইসলাম নয়ন বলেন, ভোলার বিসিক শিল্প নগরিতে বর্তমানে নানা সমস্যা রয়েছে এরমধ্যে গ্যাসের সংযোগ বড় সমস্যা হয়ে দাড়িয়েছে। যে কারনে অনেক কারখানা বন্ধ হয়ে গেছে অনেকগুলো বন্ধ হওয়ার উপক্রম। তাই বিসিকে আরো জমজমাট করে তোলার লক্ষ্যে অতি দ্রুত গ্যাসের সংযোগ দেয়া জরুরি।
এদিকে বিসিকে একটি ফিড, ২টি প্লাস্টিক কারখানা, একটি পাইপ, একটি আলকারতা, একটি টাইলস, একটি মবিল, একটি জুতার কারখানা চালু রয়েছে। কিন্তু নানা সমস্যার কারনে ওইসব প্রতিষ্ঠান জমজমাট হচ্ছে না। এছাড়াও মুড়িসহ বেশ কিছু কারখানা চালু করা সম্ভব হয়নি।
বিসিক শিল্প নগরি ঘুরে দেখা গেছে, অধিকাংশ প্লট খালি পড়ে রয়েছে। বিদ্যুতের তার ও খুটির নাজুক অবস্থা। যে কোন সময় দুর্ঘটনার আশংকা করা হচ্ছে। বিসিকটি সড়টি বেহাল দশায় পরিনত হয়েছে। সড়কের চারপাশ জুড়ে ইট ও খোয়া উঠে গিয়ে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে।
কয়েকজন ব্যবসায়ী জানালেন, গ্যাসের উপর নির্ভর করেই বিসিকে বড় বড় প্রতিষ্ঠান এবং কারখানা স্থাপনের উজ্জ্বল সম্ভাবনা থাকলেও শুধু গ্যাস সংযোগ নেই বলে অনেকেই আগ্রহ কমে গেছে।
ভোলা বিসিক শিল্প নগরীর হিসাব রক্ষক মো: ফারুক হোসেন বলেন, বিসিকে ৭২ টি প্লটের মধ্যে ৩৭টি প্লট বরাদ্দ হয়েছে। কিন্তু ৩৭টির মধ্যে কারখানা বা ফ্যাক্টরী তৈরী করা মাত্র ১৭টি বাকি ২০টি প্লটে কোন কারখানা তৈরী করা হয়নি।
তিনি আরো বলেণ, বিসিকের ৩৭টি প্লটের মধ্যে সকল ব্যবসায়ী গ্যাস ভিত্তিক শিল্প স্থাপন করবেন বলে আবেদন করেছিলেন। কিন্তু গ্যাসের অভাবে তারা শিল্প প্রতিষ্ঠা করতে পারছেনা।
এ ব্যাপারে ভোলায় গ্যাস সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান সুন্দরবন গ্যাস কোম্পানীর ব্যবস্থাপক মো: মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, গ্যাস নিয়ে যে জটিলতা ছিলো তা এখণ আর নেই, সরকার শিল্প নগরীগুলোতে গ্যাস সরবরাহ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। সে মোতাবেক আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে ভোলার বিসিক শিল্প নগরিতে গ্যাসের লাইন টেনে সংযোগ দেয়ার কাজ শুর হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২৩:৪৭:৩১   ৪৫০ বার পঠিত  




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

অর্থনীতি’র আরও খবর


বোরহানউদ্দিনে ৪৮ জেলের মধ্যে বকনা বাছুর বিতরণ
মেঘনা-তেঁতুলিয়ায় বাগদার রেণু শিকারের মহোৎসব
ভোলায় লাজফার্মা মডেল ফার্মেসির উদ্বোধন
ভোলা মহাজনপট্টিতে স্বপ্ন আউটলেটের শাখা উদ্বোধন
লালমোহনে ১২৬ কোটি টাকার বোরো ধান উৎপাদনের সম্ভাবনা
ভোলার গ্যাস উৎপাদন: কূপ খননে আরও চড়া দাম চায় গাজপ্রম
ভোলায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ২ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ছাই
নদীতে মিলছে না কাংখিত ইলিশ, হতাশ জেলেরা
কাঁচের চুড়ি তৈরিতে ব্যস্ত বোরহানউদ্দিনের শ্রমিকরা
দুই মাসের নিষেধাজ্ঞার পর মাছ শিকারে প্রস্তুত জেলেরা



আর্কাইভ