পূন:নির্বাচিত হওয়ায় আব্দুল মমিন টুলুকে রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা প্রদান

স্টাফ রিপোর্টার ॥
ভোলা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে পূণ:নির্বাচিত হওয়ায় জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মমিন টুলুকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে ভোলা জেলা পরিষদ মিলনায়তনে ভোলা জেলা রেড ক্রিসেন্ট ইউনিট এর উদ্যোগে এই সংবর্ধনা দেওয়া হয়েছে।

---

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপলক্ষ্যে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় ভোলা জেলা রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের সেক্রেটারী মো: আজিজুল ইসলাম এর সভাপত্বিতে  অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন রেড ক্রিসেন্ট এর কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য  ভোলা সদর  উপজেলার চেয়ারম্যান মো: মোশারেফ হোসেন, জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক জহিরুল ইসলাম নকীব, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম, ভোলা পৌর সভার সাবেক প্যানেল মেয়র মো: আনোয়ার হোসেন, ভোলা পৌর সভার সাবেক কাউন্সিলার আলহাজ্ব মো: ফেরদাউস আহম্মেদ, যুব প্রধান আদিল হোসেন তপু প্রমুখ। এসময় রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের যুব সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পরে নবনির্বাচিত চেয়ারম্যানকে  ফুলের শুভেচ্ছা জানানো হয়।
আলহাজ্ব আবদুল মমিন টুলু একজন সুশীল রাজনীতিবিদ, যিনি সততা ও যোগ্যতা নিয়ে  জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে ২য় মেয়াদে দায়িত্ব পালন করছেন।  এর আগে ২ বার জেলা পরিষদ এর প্রশাসাক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। প্রায় ২৮ বছর  ধরে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে যোগ্যতার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করেছেন। দলের দুর্দিনে ত্যাগ তিতিক্ষার মাধ্যমে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি ১৯৫৪ সালের ২৬ ডিসেম্বর  ভোলার ঐতিহ্যবাহী মিয়াজী পরিবারে জন্মগ্রহন করেন।
তার পিতা মরহুম ডাক্তার তোফাজ্জল হোসেন। ভোলা সরকারি স্কুল থেকে এসএসসি, ভোলা সরকারি কলেজ থেকে এইচএসসি ও ১৯৭৩ সালে বিএ পাস করেন।
আবদুল মমিন টুলু ১৯৬৮ সালে স্কুলে পড়াকালীন অবস্থায় ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত হন। ৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহন করেন। ১৯৭২ সালে ভোলা কলেজের নির্বাচিত ভিপি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮২ সালে জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর স¤পাদক নির্বাচিত হন। ১৯৮৬ সালে সাধারণ সম্পাদক হন। ৯৪ থেকে ২০০১ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ছিলেন। বিগত এক দশক যাবত জেলা পরিষদের প্রশাসক ও চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি চেম্বার অফ কমার্স,রেড ক্রিসেন্ট, ডায়াবেটিক সমিতিসহ বেশকিছু সামাজিক সংগঠন ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সভাপতিসহ গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে রয়েছেন। একজন সৎ,যোগ্যও সুবিবেচক রাজনীতিবিদ হিসেবে তার সুখ্যাতি রয়েছে।
স্থানীয় সরকার কাঠামোর ৪টি স্তরের অন্যতম প্রধান একটি স্তর হচ্ছে জেলা পরিষদ। দেশের সকল জেলায় সুপ্রাচীন আমল থেকেই জেলা পরিষদ জনসাধারণের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন। নিষ্কীয় জেলা পরিষদকে আবদুল মমিন টুলু ভোলা জেলার ৪ এমপি, উপজেলার চেয়ারম্যান ও অন্যান্যজন প্রতিনিধিদের সহায়তায় জেলা পরিষদের কার্যক্রমে গতিশীল করেছেন। পাশাপাশি তার বিভিন্ন মেয়াদে দায়িত্বে থাকার ফলে ভোলা জেলার সকল উপজেলায় জেলা পরিষদের উন্নয়নে  ছোয়া লাগে।


এ বিভাগের আরো খবর...
ভোলায় ট্রলি উল্টে ফকরুল নিহত, আহত ১০ ভোলায় ট্রলি উল্টে ফকরুল নিহত, আহত ১০
বোরহানউদ্দিনে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটনায় বিএনপিকে জড়িয়ে মামলা বোরহানউদ্দিনে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটনায় বিএনপিকে জড়িয়ে মামলা
চরফ্যাশনে মেঘনায় প্রভাবশালীদের অবৈধ বালু উত্তোলন, রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার চরফ্যাশনে মেঘনায় প্রভাবশালীদের অবৈধ বালু উত্তোলন, রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার
লালমোহনে চিত্রা হরিণ উদ্ধার লালমোহনে চিত্রা হরিণ উদ্ধার
ভোলায় জিজেইউএস বাজারের শুভ উদ্বোধন ভোলায় জিজেইউএস বাজারের শুভ উদ্বোধন
ধনিয়ার তুলাতুলি বাজারকে আধুনিক বাজারের নির্মান কাজের উদ্ধোধন ধনিয়ার তুলাতুলি বাজারকে আধুনিক বাজারের নির্মান কাজের উদ্ধোধন
বোরহানউদ্দিনে মধ্যরাতে ককটেল বিস্ফোরণ, আসামি বিএনপির নেতাকর্মী বোরহানউদ্দিনে মধ্যরাতে ককটেল বিস্ফোরণ, আসামি বিএনপির নেতাকর্মী
তথ্য প্রযুক্তি সহায়তায় প্রতারকের কাছ থেকে টাকা উদ্ধার তথ্য প্রযুক্তি সহায়তায় প্রতারকের কাছ থেকে টাকা উদ্ধার
চরফ্যাশনে তেঁতুলিয়ায় নদীর তীরে কাটা হাত চরফ্যাশনে তেঁতুলিয়ায় নদীর তীরে কাটা হাত
দৌলতখানে ৫ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা দৌলতখানে ৫ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

পূন:নির্বাচিত হওয়ায় আব্দুল মমিন টুলুকে রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের পক্ষ থেকে সংবর্ধনা প্রদান
(সংবাদটি ভালো লাগলে কিংবা গুরুত্ত্বপূর্ণ মনে হলে অন্যদের সাথে শেয়ার করুন।)
tweet

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)