ভোলায় ১১ মাসে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত ৬৪৪৯ শিশু, মৃত্যু ১৮

স্টাফ রিপোর্টার ॥
ভোলায় বেড়েই চলে শিশুদের ঠান্ডা, জ্বর, সর্দি, কাশি, শশ্বাসকষ্ট ও নিউমোনিয়াসহ ঠা-াজনিত রোগের প্রকোপ। যা বিগত সময়ের চেয়ে অনেক বেশি বলে মনে করছেন চিকিৎসকরা। গত ১১ মাসে জেলায় নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬ হাজার ৪৪৯ জন। যাদের মথ্যে মৃত্যু হয়েছে ১৯ জনের। হঠাৎ করেই নিউমোনিয়া আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় অভিভাবকরা উদ্ভিগ্ন হয়ে পড়েছেন। অন্যদিকে রোগীদের চাপ বৃদ্ধি পাওয়ায় নার্স ও চিকিৎসকরা রোগীদের চিকিৎসা দিতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছেন।
শয্যা সংকট থাকায় অনেকেই মেঝেতে চিকিৎসা আবার অনেক শিশুকে গাদাগাদা করে একটি বেডে গড়ে ২-৩ জনকে চিকিৎসা নিতে হচ্ছে।

---

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের মতে, আক্রান্তদের মধ্যে জানুয়ারি মাসে ৪১৪ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২ জনের। ফেব্রুয়ারি মাসে আক্রান্ত হয়েছে ৪৪০ এবং মৃত্যু হয়েছে ২ জনের।
মার্চ মাসে আক্রান্ত হয়েছে ৪৬১ জন। যাদের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ২ শিশুর। এপ্রিল মাসে কোন মৃত্যু ঘটনা না ঘটলেও আক্রান্ত হয়েছে ৪২৪ জন। মে মাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৮৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩ জনের। জুন মাসে মৃত্যু কিছুটা কমে একজন হলেও আক্রান্ত হয়েঁর ৪৪৩ জন। অন্যদিকে জুলাই মাসে ২ শিশু মৃত্যু হয়েছে এবং আক্রান্ত হয়েছে আরও ৪০২জন। আগষ্ট মাসে আক্রান্ত হয়েছে ৩৮৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ জনের। সেপ্টেম্বর মাসে নিউমোনিয়া আক্রান্ত হয়েছে ৫৬১ জন। এরমধ্যে মৃত্যু হয়েছে ২ শিশুর।
অক্টোবর মাসে নিউমোনিয়ার রেকর্ড ছাড়িয়ে যায়। এ মাসে আক্রান্ত হয়েছে এক হাজার ৩ জন এবং মৃত্যু হয়েছে। এরমধ্যে সর্বোচ্চ মৃত্যু হয়েছে ৩ জনের। তবে নভেম্বর মাসে আক্রান্ত বাড়লেও মৃত্যু হয়েছে কম। এ মাসের ২২ দিনেই  আক্রান্ত হয়েছে ১২৩৯ জন শিশু এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে এক জনের।
ভোলা সদর হাসপাতালে গত এক সপ্তাহ ধরে রোগীদের ভয়াবহ চাপ। তবে জেলায় এক সপ্তাহে আক্রান্ত হয়েছে ৩৩৬ জন। ২৪ ঘন্টায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪২ জন।
নার্সরা জানান, হাসপাতালে যারাই ভর্তি হচ্ছেন তাদের বেশিরভাগ নিউমোনিয়া আক্রান্ত। এতে হিমশিম খেতে হচ্ছে তাদের। অন্যদিকে শয্যা সংকট থাকায় ভোলার ২৫০ জেনারেল হাসপাতালের পুরাতন ভবনে মেঝেতে চিকিৎসা নিতে দেখা গেছে রোগীদের।
এ বিষয়ে ভোলা হাসপাতালের শিশু বিশেষজ্ঞ ডা: নিশি পাল বলেন, আবহাওয়ায় পরিবর্তনের কারণে শিশুদের নিউমোনিয়া আক্রান্তের হার বেশি। অতিতের যে কোন সময়ের চেয়ে বেশি। আমরা রোগীদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছি। পর্যাপ্ত ওষুধ সরবরাহ রয়েছে।
তিনি আরও বলেন, শিশুদের প্রতি অভিভাবকদের আরও বেশি যতœবান হতে হবে। কারন, এ সময়টায় দিনে কিছুটা গরম এবং রাতে শীত অনুভূত হচ্ছে। তাই শিশুদের যাতে ঠা-া না লাগে সেদিকে সতর্ক থাকতে হবে অভিভাবকদের।
ভোলার সিভিল সার্জন ডাঃ কেএম শফিকুজ্জামান বলেন, নিউমোনিয়া আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে তবে জেলার সব হাসপাতালে পর্যাপ্ত ওষুধ সরবরাহ রয়েছে। যেসব কারণে শিশুদের নিউমোনিয়া হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।


এ বিভাগের আরো খবর...
তজুমদ্দিনের মেঘনায় মুক্তিপণের দাবীতে ১৫ জেলে অপহরণ তজুমদ্দিনের মেঘনায় মুক্তিপণের দাবীতে ১৫ জেলে অপহরণ
ভোলায় খামারিদের পশুর মানবৃদ্ধি করার লক্ষ্যে আদর্শ প্রাণীসেবার সভা অনুষ্ঠিত ভোলায় খামারিদের পশুর মানবৃদ্ধি করার লক্ষ্যে আদর্শ প্রাণীসেবার সভা অনুষ্ঠিত
লালমোহনে নিউমোনিয়া ও ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা লালমোহনে নিউমোনিয়া ও ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা
ভোলায় জেলা পরিষদের উদ্যোগে শিক্ষা বৃত্তি ও গুণী সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত ভোলায় জেলা পরিষদের উদ্যোগে শিক্ষা বৃত্তি ও গুণী সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত
লালমোহনে শিশু ধর্ষণের অভিযোগে মামলা লালমোহনে শিশু ধর্ষণের অভিযোগে মামলা
চরফ্যাশনে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ এবং বিজ্ঞান অলিম্পিয়াড অনুষ্ঠিত চরফ্যাশনে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ এবং বিজ্ঞান অলিম্পিয়াড অনুষ্ঠিত
ভোলায় জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় নেতাকে সংবর্ধনা ভোলায় জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় নেতাকে সংবর্ধনা
বোরহানউদ্দিনে শীতার্তদের কম্বল বিতরণ বোরহানউদ্দিনে শীতার্তদের কম্বল বিতরণ
ভোলার বাপ্তায় মাদ্রাসা ছাত্রদের মাঝে আর.আর হেল্প লাইনের পক্ষ থেকে কম্বল বিতরণ ভোলার বাপ্তায় মাদ্রাসা ছাত্রদের মাঝে আর.আর হেল্প লাইনের পক্ষ থেকে কম্বল বিতরণ
চরফ্যাশনে জমিজমার বিরোধের জেরধরে এক গৃহবধূ হত্যা ॥ আহত-১ চরফ্যাশনে জমিজমার বিরোধের জেরধরে এক গৃহবধূ হত্যা ॥ আহত-১

ভোলায় ১১ মাসে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত ৬৪৪৯ শিশু, মৃত্যু ১৮
(সংবাদটি ভালো লাগলে কিংবা গুরুত্ত্বপূর্ণ মনে হলে অন্যদের সাথে শেয়ার করুন।)
tweet

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)